আশুলিয়া বাসের হেলপার পরিচয়ের ছিনতাই পার্টি

Print

 

 
জেলাঃ প্রতিনিধি  

আনিছ সাহেব আশুলিয়ার নবীনগর থেকে বাইপাইলে নামবেন। বাসও কাছাকাছি চলে আসলো। এসময় বাসের ঠিক পিছনের সিটের ব্যক্তি হঠাৎ করেই তাঁর পিঠে বমি করে দিলো। এসময় পাশের সিট সহ আশেপাশের দুইতিনজন আনিছ সাহেবের জামা ধরে পরিস্কার করার ভঙ্গি করলো ও একটু ভীড় জমিয়ে ফেললো। এমন একটা অবস্থা যে তাকে খুব সহযোগিতা করছে লোকগুলো। একটু অস্বস্তি হয়ে জায়গা ছেড়ে দেয়ার চেষ্টা করেন তিনি। কোন রকম নিজেকে সরিয়ে বাঁচলেন। কিন্তু নেমে কিছুক্ষণ পরেই বুঝলেন, পকেটের ৪৫ হাজার টাকা ও মোবাইল ঘায়েব। এমন ভাবেই নিজের অভিজ্ঞতা জানালেন আনিছ সাহেব। মলম ও অজ্ঞানপার্টি চক্রটি মুলত বাসে নতুন এমন কৌশল শুরু করেছে।

এদিকে আশুলিয়ায় অভিযান চালিয়ে এমন বমিপার্টির ১১ সদস্যকে আটক করেছে র‍্যাব-১ একটি দল। এসময় তাদের কাছ মলম, ব্লেড, মোবাইল, নগদ টাকা ও ছুরি জব্দ করা হয়েছে। এরা মলমপার্টি ও সরাসরি ছিনতাই কাজেও জড়িত।

মঙ্গলবার (১৮ জুন) দুপুরে আশুলিয়া থানা থেকে রিমান্ড চেয়ে তাদের আদালতে পাঠানো হয়। এরআগে রাতে আশুলিয়ার বলিভদ্র এলাকা থেকে তাদের আটক করে আশুলিয়া থানায় হস্তান্তর করে র‌্যাব। তারা বিভিন্ন পরিবহনের বাসে হেলপারের কাজ করে বলে প্রাথমিকভাবে জানা যায়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন-মাগুড়া সদর থানার বায়নাটিবিসিপাড়ার মৃত শেখ শামীমের ছেলে রবিউল ইসলাম রবি (৫৫),  গাজীপুর কালিয়াকৈরের শ্রীফলতলী এলাকার বাবুল মিয়ার ছেলে রোমান হোসেন (২৭), একই থানার হাটুরিয়া গ্রামের মৃত রহমান আলীর ছেলে তৌফিকুল ইসলাম রানা (৩৬), শেওড়াতলী গ্রামের ইসাহাক আলীর ছেলে রাসেল হোসেন (২৭), পাবনা আটঘরিয়া গোপালপুর এলাকার সামসুর রহমানের ছেলে রাসেল হোসেন হিরা, সিরাজগঞ্জ শাহজাদপুর নোকালী গ্রামের মো. আলীর ছেলে তোয়াজ আলী (৩০), টাঙ্গাইল ধনবাড়ি থানার চাকুরিয়া এলাকার মোসলেম উদ্দিনের ছেলে রাসেল মিয়া (৩৫), নওগা আত্রাই হিঙরকান্দি সফিক প্রামানিকের ছেলে আজিজুল ইসলাম (৩৫),  কুড়িগ্রাম ভুরুঙ্গামারী ছোটখাটাবাড়ির মজনু মিয়ার ছেলে রফিকুল ইসলাম (৩৫), টাঙ্গাইল নাগরপুর থানার পাহাড়পুর মৃত দবির খানের ছেলে মশিউর রহমান (৪৫), একই থানার কেদারপুর গ্রামের মৃত মুনসুর আলীর  ছেলে জাকির হোসেন (৪০)।

আশুলিয়া থানার এস আই আজহারুল ইসলাম জানান, আসামীদের নামে সাভার ও আশুলিয়া থানায় একাধিক মামলা রয়েছে। তারা অধিকাংশই বিভিন্ন পরিবহনের হেলপারের কাজের আড়ালে এইসব অপকর্ম চালিয়ে আসছিলো। এরা মুলত নবীনগর-চন্দ্রা ও বাইপাইল-আবদুল্লাহপুর মহাসড়কে চক্রটি এই ধরনের অপরাধ করে থাকে।

তার বিরুদ্ধে র‌্যাব-১ বাদী আশুলিয়া থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

[ প্রিয় পাঠক, আপনিও বিডিসারাদিন24 ডট কম অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইল, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, রান্নার রেসিপি, ফ্যাশন-রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন- bdsaradin24@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে। নারীকন্ঠ এবং মত-দ্বিমত বিভাগে প্রকাশিত লেখার বিষয়, মতামত, মন্তব্য লেখকের একান্ত নিজস্ব। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে  bdsaradin24.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরণের দায় গ্রহণ করে না। ]

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 77 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ
bdsaradin24.com