এই শিল্পী সমিতিতেই মিশার সামনে শাকিবকে অপমান করা হয়েছিল

Print

ড্যানিরাজ অপমান করছিল মিশা তখন চুপ করে বসেছিল। মৌসুমী চিৎকার করে বলছিলেন মিশা তুমি কথা বলো, মিশা তখন বলছিল আমি কী বলবো? মৌসুমী তখন বলছিল তুমি সভাপতি তুমি কথা বলো। জায়েদ সেসময় ঢুকছিল মাত্র। জায়েদও কথা বলেনি। মৌসুমী সেদিন অঝোরে কেঁদেছিল।

সম্প্রতি শিল্পী সমিতিতে ঘটে যাওয়া অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা নিয়ে কথা বলতে শুক্রবার রাতে ফেসবুক লাইভে এসেছিলেন চিত্রনায়ক ওমর সানী। তিনি মৌসুমীর সাথে ঘটে যাওয়া সেই ঘটনার বিবরণ দেওয়ার সময় বলেন, এই শিল্পী সমিতিতেই আমাদের সুপারস্টার শাকিব খানকে লাঞ্ছিত করা হয়েছিল, সেদিনও কিন্তু মিশা সামনে ছিল।

এফডিসিতে বহিরাগতদের ঢোকানো শুরু করেছে মিশা-জায়েদ খান উল্লেখ করে ওমর সানী বলেন, শিল্পী সমিতিতে আজ বহিরাগত ইস্যু তৈরি করা হয়। বহিরাগত নিয়ে আমাদের দিকে আঙ্গুল তোলা হয়। মৌসুমীর এক বান্ধবী, লালমাটিয়া মহিলা কলেজে তারা সহপাঠী ছিল, তেজগাঁও এলাকার আওয়ামী লীগের নেত্রী, তিনি এফডিসিতে এসেছিলেন মৌসুমীর সঙ্গে দেখা করতে এই বিষয়ে নিয়ে আমাদের ‘বহিরাগত’ বলা হচ্ছে। হ্যাঁ আমি মানছি কেপিআইভুক্ত এলাকায় শুধু বহিরাগত কেন কোনো সংগঠনই থাকা উচিৎ নয়। তারপরেও রয়েছে। তবে শিল্পী সমিতিতে গত দুই বছর মিশা-জায়েদ খান কাদের এনে ফুল দিয়েছে, সেসব প্রমাণ রয়েছে। তারা কেউই শিল্পী নয়।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মৌসুমীকে অনেক ভালোবাসেন স্নেহ করেন বলেও জানান ওমর সানী। তিনি বলেন, মৌসুমী এখন আওয়ামীগ করছে, তাই অনেকেই মৌসুমীকে ভালোবাসেন। প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনাও মৌসুমীকে প্রচণ্ড রকম, ভালোবাসেন, স্নেহ করেন। কিছুদিন আগে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি এসেছিলেন। তিনি প্রধানমন্ত্রীকে বলেছিলেন আপনাদের একজন অভিনেত্রী আছেন তিনি কোথায়? প্রধানমন্ত্রী বলেছিলেন দেখতে চান? মমতা বলেছিলেন, ‘হ্যাঁ। এরপর মৌসুমীকে প্রধানমন্ত্রী নিয়ে আসেন। প্রচণ্ডরকম ভালোবাসেন মৌসুমীকে।

ড্যানিরাজের সাহসের উৎস সম্পর্ক বলেন, এতোবড় কলিজা ড্যানিরাজের হতে পারে না। সে কারো ইশারায় সে নিশ্চই এমন ব্যবহার করেছে। কারণ সে কেন এমন করবে? তার এতো বড় কলিজা হতে পারে এটা আমি বিশ্বাস করি না।

[ প্রিয় পাঠক, আপনিও বিডিসারাদিন24 ডট কম অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইল, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, রান্নার রেসিপি, ফ্যাশন-রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন- bdsaradin24@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে। নারীকন্ঠ এবং মত-দ্বিমত বিভাগে প্রকাশিত লেখার বিষয়, মতামত, মন্তব্য লেখকের একান্ত নিজস্ব। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে  bdsaradin24.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরণের দায় গ্রহণ করে না। ]

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 78 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ
bdsaradin24.com