এরশাদের ‘কবর’ নিয়ে টানাটানি

Print

সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে ১০ দিন লাইফ সাপোর্টে থাকার পর জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ শেষ নি:শ্বাস ত্যাগ করেছেন। রোববার সকাল পৌনে ৮টার দিকে তাকে মৃত ঘোষনা করেন হাসপাতালের চিকিৎসকরা।

তবে একসময়ের সবচেয়ে ক্ষমতাধর রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের কবর কোথায় হবে, তা নিয়ে সিদ্ধান্তহীনতায় এরশাদের পরিবার, আত্মীয় স্বজন ও দলের নেতাকর্মীরা।

অবশ্য মৃত্যুর আগ থেকেই এরশাদের কবর নিয়ে টানাটানি চলেছে। পরিবার ও নেতাকর্মীদের মাঝে এ নিয়ে মতানৈক্য দেখা দিয়েছে। চলছে তর্ক বিতর্কও। স্ত্রী রওশন, ছোটভাই জিএম কাদেরসহ দলের বৃহৎ অংশ ঢাকায় চাইলেও রংপুরের নেতাকর্মীরা চান রংপুরে এরশাদকে সমাহিত করতে। সম্প্রতি দলের প্রেসিডিয়াম সভায়ও এরশাদের কবর নিয়ে কোনো সিদ্ধান্তে পৌঁছতে পারেনি দলের শীর্ষ পর্যায়ের নেতারা।

জানা গেছে, বনানীতে সেনা কবরস্থানে সমাহিত করা হতে পারে এরশাদকে। এজন্য একপ্রকার সিদ্ধান্ত হয়ে আছে। সরকারের পক্ষ থেকেও নাকি সম্মতি রয়েছে। সেখানে না হলে শেষ পর্যন্ত রংপুরের পল্লী নিবাসেও তাকে দাফন করা হতে পারে।

কোথায় কবর দেয়া হবে তার সবকিছুই নির্ভর করছে এরশাদের পরিবারের সিদ্ধান্তের ওপর। স্ত্রী রওশন এরশাদ চান ঢাকায় তার স্বামীকে সমাহিত করা হোক। বনানীর কবরস্থানে সেটা হতে পারে। আর সেখানে যাতে নেতাকর্মী সবাই যেতে পারেন। ছোটভাই জিএম কাদেরও চান ঢাকায় হোক। সেটা সেনা কবরস্থান কিংবা অন্য যে কোন স্থানে হতে পারে।

দলের অধিকাংশ নেতাকর্মীও চান ঢাকায় যেন তাদের প্রিয় নেতার কবর হয় যাতে তারা যেতে পারেন। কারণ এরশাদ একজন জনপ্রিয় জাতীয় নেতা, সাবেক রাষ্ট্রপতি এবং একটি রাজনৈতিক দলের চেয়ারম্যান। এসব বিষয় মাথায় রেখে এরশাদের কবর ঠিক করার কথা বলেছেন নেতাকর্মীরা।

[ প্রিয় পাঠক, আপনিও বিডিসারাদিন24 ডট কম অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইল, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, রান্নার রেসিপি, ফ্যাশন-রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন- bdsaradin@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে। নারীকন্ঠ এবং মত-দ্বিমত বিভাগে প্রকাশিত লেখার বিষয়, মতামত, মন্তব্য লেখকের একান্ত নিজস্ব। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে  bdsaradin24.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরণের দায় গ্রহণ করে না। ]

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 72 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ
bdsaradin24.com