চেয়ারম্যান পদ পুনর্বহাল রাখতে হাইকোর্টে রিট করবেন তাবির হোসেন খান পাভেল

Print

নবাবগঞ্জ উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদ পুনর্বহাল রাখতে হাইকোর্টে রিট করবেন তাবির হোসেন খান পাভেল।

পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়া নবাবগঞ্জ উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদটি পুনর্বহাল রাখতে
হাইকোর্টে রিট করবেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদ থেকে সদ্য অব্যাহতি হওয়া ঢাকা জেলাধীন নবাবগঞ্জ উপজেলা পরিষদর ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ তাবির হোসেন খান পাভেল।

বৃহস্পতিবার রাতে ব্যক্তিগত ফেইসবুক সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম পেইজে লিগ্যাল নোটিশের কপি সহ একটি স্ট্যাটাসের মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন তিনি।

তথ্যসূত্র মতে , ২০১৯ সালের ৩১ মার্চ অনুষ্ঠিত ৫ম উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে
নবাবগঞ্জ উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের হলফ নামায় তার বিরুদ্ধে কোন ফৌজদারি অপরাধ (মামলা) আছে কিনা এমন তথ্যের স্থানে কোন অপরাধ (মামলা) নেই মর্মে মিথ্যা বা ভূল তথ্য দেওয়া হয়।

এতে রিটার্নিং অফিসার তার প্রার্থীতা বাতিল করেন৷ পরে লিখিত আকারে রিটার্নিং অফিসারের বরাবর, মামলার যাবতীয় তথ্য জামিনে থাকার বিষয়টি অন্তর্ভুক্ত করলে নির্বাচন কমিশন তার প্রার্থীতা গ্রহণ করেন।

নির্বাচিত হওয়ার দুই বছর পর সম্প্রতি গত ৪ এপ্রিল স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রনালয়ের উপ সচিব মোহাম্মদ সামসুল হক নির্বাচনে মিথ্যা বা ভুল তথ্য প্রদানের অভিযোগ তা বিভাগীয় কমিশনারের তদন্তে প্রমাণিত মর্মে

একটি প্রজ্ঞাপন জারি করে মোঃ তাবির হোসেন খান পাভেলকে নবাবগঞ্জ উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদ থেকে অপসারণ করে পদটি শূন্য দেখানো হয়।

এব্যাপারে মোঃ তাবির হোসেন খান পাভেল বলেন, আমি নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে সৎ, সততা ও সম্মানের সাথে আমার নিজ দায়িত্ব পালন করে আসছি।

আমি আমার জনগনের কাছে গ্রহণযোগ্য কিনা তার প্রমাণ আপনারা ভোটের মাধ্যমে দেখেছেন।

এযাবৎ কালে অনুষ্ঠিত নবাবগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে সর্বাধিক ৩৫ হাজারের উপরে বেশি ভোট পেয়ে আমি নবাবগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছি। সাধারণ মানুষের ভোট ভালোবাসায় স্নিগ্ধ হয়েছি।

আমি আমার নিজের জন্য নয়, আল্লাহর সন্তুষ্টি ও জণগনের স্বার্থে কাজ করতে নির্বাচনে অংশ নিয়ে ছিলাম। আমি আমার উপর অর্পিত দায়িত্ব সম্মানের সাথে পালন করতে চেষ্টা করছি।

তিনি আরোও বলেন, একটি স্বার্থন্বেসী মহল তাদের স্বার্থ হাসিলের উদ্দেশ্যে আমার পিছু লেগেছেন।
আমি জনগণের স্বার্থে আমার ভাইস চেয়ারম্যান পদটি পুনর্বহাল রাখতে শিগগির‌ই হাইকোর্টে রিট করবো।

সেই সাথে মহান আল্লাহ তালার প্রতি আমার যতেষ্ট বিশ্বাস রয়েছে। আমি ধর্য্য ধারণ করেছি আল্লাহ তায়ালার উত্তম ফয়সালার অপেক্ষায় আছি।

তার দেওয়া পোস্টটি পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো
আসসালামু আলাইকুম ওয়া রহমাতুল্লাহ,
প্রিয় নবাবগঞ্জবাসী,
আমার বিরুদ্ধে যে মিথ্যা অভিযোগ দেয়া হয়েছে। সে বিষয়ে কিছু কথা আপনাদের উদ্দেশ্যে বলতে চাই।

আমার বিরুদ্ধে যে অভিযোগটি করা হয়েছে, যে আমি মামলা সংক্রান্ত তথ্য গোপন করেছি। সে বিষয়ে বলছি,

আমি নবাবগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান পদে নির্বাচন করার উদ্দেশ্যে প্রার্থী হওয়ার জন্য যে হলফ নামা দেই। সেখানে ভূল বসত মিথ্যা মামলার তথ্য না দেয়ায়।

সে সময় আমার প্রার্থীতা বাতিল করেন নির্বাচন কমিশন, পরবর্তীতে আমি লিখিত আকারে রিটার্নিং অফিসারের বরাবর, মামলার যাবতীয় তথ্য জামিনে থাকার বিষয়টি লিখিত আকারে অন্তর্ভুক্ত করলে, আমার প্রার্থীতা বৈধ ঘোষণা করেন।

তারপর আমি টিউবওয়েল প্রতীকে নির্বাচন করে আপনাদের সর্বোচ্চ ভোটে নবাবগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে নির্বাচিত হই।

নবাবগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে আমার দুই বছর সময় অতিবাহিত হওয়ার পর কে বা কাহারা আমার নামে অভিযোগ করেন।

তারপর বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয় থেকে আমাকে একটি লিগাল নোটিশ পাঠানো হয়। যে আমি মামলা সংক্রান্ত তথ্য গোপন করেছি।

আমি লিগ্যাল নোটিশের জবাব প্রদান করি, বলি যে আমি নির্বাচনের পূর্বে রিটার্নিং অফিসারের নিকট মামলায় আপিল জামিনের সব কাগজ পত্র জমা দিয়েছি।

অভিযোগ আসার পর পুনরায় বিভাগীয় কমিশনারের কাছেও প্রমাণ স্বরূপ তথ্য অন্তর্ভুক্ত করার আবেদন সহ

আমার মামলার আপিলের ও জামিনের কাগজ সহ মামলা সংক্রান্ত সকল কাগজপত্র জমা দিয়েও ন্যায় বিচার পাইনি।

এতে স্পষ্ট যে উপর মহলের হাত আছে। সরেই যেতে চেয়েছিলাম কিছু শুভাকাঙ্ক্ষী ভাইদের কারণে
এ বিষয়ে আমি হাইকোর্টে শীঘ্রই রিট করবো।

আমার জন্য দোয়ার দরখাস্ত রইলো।

আমি যদি ভাইস চেয়ারম্যান পদ ফেরৎ না ও পাই,

আমার আফসোস নেই। আমি যেভাবে আপনাদের পাশে ছিলাম, আল্লাহ আমাকে সুস্থ রাখলে ইনশাআল্লাহ তার চেয়ে আরো বেশি আপনাদের পাশে থাকার চেষ্টা করবো, আল্লাহ হাফেজ।

[ প্রিয় পাঠক, আপনিও বিডিসারাদিন24 ডট কম অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইল, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, রান্নার রেসিপি, ফ্যাশন-রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন- bdsaradin@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে। নারীকন্ঠ এবং মত-দ্বিমত বিভাগে প্রকাশিত লেখার বিষয়, মতামত, মন্তব্য লেখকের একান্ত নিজস্ব। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে  bdsaradin24.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরণের দায় গ্রহণ করে না। ]

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 6 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ