ঢাকার কোথায় কোথায় কম দামে ভালো জিনিস কেনা যায়

Print

 

উৎসবের মৌসুম। অনেক কিছু কিনতে হবে, কিন্তু হয়ত আপনার কাছে সেই পরিমান অর্থ নেই। আপনি কি জানেন কম খরচে ঢাকায় শপিং করার বেশ কিছু স্থান রয়েছে । যেখানে আপনি সাদ্ধ্যের মধ্যেই কেনাকাটা করতে পারবে।  চলুন নেওয়া যাক, ঢাকার কোথায় কোথায় কম দামে ভালো জিনিস কেনা যায় ।

নিউ মার্কেট: দোকান হোক বা ফুটপাথ কমদামে জিনিসপত্র কেনার জন্য নিউ মার্কেটের জুড়ি নেই । এখানে শাড়ি থেকে শুরু করে বাচ্চাদের পোশাকসহ সব ধরণের পোশাক পাবেন কম দামে, তবে এরা তাদের ক্রেতাদের কাছে চড়া মূল্য হাকিয়ে থাকেন তাই আপনাকে একটু দর-দাম করে নিতে হবে । তাছাড়াও এখানে প্রসাধনী, জুতা, বিভিন্ন ধরনের তৈজসপত্র, ব্যাগ, ঘরের পর্দা, বেডসীট ইত্যাদি অনেক কম দামে পাওয়া যায় ।

চন্দ্রিমা সুপার মার্কেট: নিউ মার্কেটের পাশেই চন্দ্রিমা মার্কেটটি অবস্থিত । এখানে আপনি সব ধরনের ঘরোয়া জিনিস কম দামে কিনতে পারবেন। অল্পের মধ্যেই ঘর সাজাতে চাইলে আজই চলে যান চন্দ্রিমা মার্কেটে । মনের মত শপিং করতেও পারবেন সাথে আপনার পকেটের প্রশান্তিটাও বজায় থাকবে । এই মার্কেটে আপনি সোফার কভার থেকে শুরু করে ঘরের পর্দা, বেডসীট, ফুলদানী, ওয়ালমেট, জুতা, ট্রাভেল ব্যাগ, ছেলেদের শার্ট, প্যান্ট ৫০০-৮০০ এর মধ্যে ভাল মানের পাওয়া যাবে । আর ভাল মানের টি-শার্ট ও গেঞ্জি পাওয়া যাবে ২০০-২৫০ এর মধ্যে । এছাড়াও ছেলেদের সব ধরণের পোশাক এই মার্কেটে পাওয়া যায় ।

ইসলামপুর :ইসলামপুর পাইকারি বাজারের জন্য খুবই ভাল । একসাথে পরিবারের জন্য অনেক কিছু কিনতে চাইলে চলে যান ইসলামপুর । এখানে একসাথে ৩/৪ টি ড্রেস কিনলে অচিন্তনীয় কম মুল্যে আপনি পোশাক কিনতে পারবেন । তাছাড়া খুচরা বেচাকেনাও এখানে হয়ে থাকে ।

গাউছিয়া মার্কেট: গাউছিয়া মার্কেটের ফুটপাত ঘিরে রয়েছে টি শার্ট, মেয়েদের ট্রাউজার, অন্যান্য পোশাক ও স্যান্ডেলের বিশাল বাজার। সব বয়সের মেয়েদের কাছে এই স্যান্ডেলের বাজার বেশ জনপ্রিয়। যে কোনো ধরনের স্যান্ডেল পাওয়া যায় এখানে। দাম পড়বে ১৫০ টাকা থেকে ৫৫০ টাকা পর্যন্ত। এসব ফুটপাতে নিম্ন আয়ের মানুষরাই শুধু শপিং করেন তা নয়, বিত্তবানরাও করেন। খুচরা এবং পাইকারি সব ধরণের কেনা বেচাই হয়ে থাকে এখানে । মেয়েদের পোশাকের জন্যও এই মার্কেট অধিক জনপ্রিয় ।

চাঁদনী চক শপিং কমপ্লেক্স: এখানে বিভিন্ন ডিজাইনের শাড়ি থেকে শুরু করে প্রসাধনী পণ্য যেমন- মালা, দুল, চুড়ি, আংটি, পায়েল, নুপুর, লেডিস বেগ, লেডিস জুতা, থ্রি পিস, টু পিস, বয়স বিবেচনায় বিভিন্ন ধরনের ওড়না, পাঞ্জাবি, ফতুয়া, ছোটদের পোশাক কম দামে পাওয়া যায় । বিশেষ করে ছুটির দিনে এই মার্কেটে তাই অত্যন্ত ভিড় করে মানুষ ।

মৌচাক মার্কেট: মেয়েদের ওয়ানপিস জামা, শিশুদের পোশাক, শার্ট, টি শার্ট, স্যান্ডেল, ছাতা, ব্যাগ, প্রসাধনী সামগ্রী ও আরো অনেক ধরনের পণ্য অনেক সস্তায় পাওয়া যায় এখানে। মৌচাক মার্কেটে এজন্য ভিড় লেগেই থাকে । একটু দেখে-শুনে দরদাম করে কিনতে পারলে কম দামে ভাল পণ্য কিনতে পারবেন ।

হকার্স মার্কেট: ধানমন্ডি হকার্স মার্কেটের ফুটপাতে ল্যাগিন্স, জ্যাগিন্স, মেয়েদের ওয়ানপিস জামা, শিশুদের পোশাক অনেক সস্তায় পাওয়া যায়। যা বড় কোনো ব্র্যান্ডের শোরুমে কয়েকগুণ বেশি দাম পড়বে। একটু দেখে-শুনে দরদাম করে কিনতে পারলে ভালোমানের পণ্য পাওয়া যায় ফুটপাতের দোকানগুলোতে। ফুটপাতের অনেক দোকানেও আবার ‘একদর’ লেখা থাকে।

আজিজ সুপার মার্কেট: সাভারের আজিজ সুপার মার্কেট দেশীয় পণ্যের সমাহার নিয়ে আপনাকে স্বাগত জানাচ্ছে । দেশীয় ছোট – বড় সব ধরণের বুটিক হাউসের পণ্য এখানে আপনি খুজে পাবেন। বিশেষত ছেলেদের পাঞ্জাবী, টি-শার্ট, ফতুয়া, মেয়েদের শাড়ি, জামা, থ্রি-পিস, ব্যাগ ইত্যাদি পাওয়া যায় ।

এছাড়াও ফুটপাতের দোকানগুলোতে ছেলেদের শার্ট, গেঞ্জি, টি-শার্ট,প্যান্টের কাপড় পাওয়া যায় ভালো ও অনেক বেশি পরিমাণে। তবে ছেলেদের জুতা, স্যান্ডেল ও চামড়ার বেল্ট পাওয়া যায় গুলিস্তানে বেশি। ফুটপাতের দোকানগুলোতে তরুণদের শার্ট পাওয়া যায় নানা চেক ও ডিজাইনের। কম দামে এসব শার্ট দেখলেই কিনতে ইচ্ছে করবে। জায়গা ভেদে এসব শার্টের দাম পড়বে ২০০-৫৫০ টাকায়। টি শার্টের দাম পড়বে ১৫০- ৪০০ টাকায়। জিন্স প্যান্টের দাম পড়বে ৩৫০ টাকা থেকে ৮০০ টাকা পর্যন্ত।

[ প্রিয় পাঠক, আপনিও বিডিসারাদিন24 ডট কম অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইল, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, রান্নার রেসিপি, ফ্যাশন-রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন- bdsaradin24@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে। নারীকন্ঠ এবং মত-দ্বিমত বিভাগে প্রকাশিত লেখার বিষয়, মতামত, মন্তব্য লেখকের একান্ত নিজস্ব। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে  bdsaradin24.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরণের দায় গ্রহণ করে না। ]

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 31 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ
bdsaradin24.com