ঢাকামঙ্গলবার , ৩১ মে ২০২২
  1. আন্তর্জাতিক
  2. ইতিহাস ঐতিয্য
  3. ইসলাম
  4. কর্পোরেট
  5. খেলার মাঠে
  6. জাতীয়
  7. জীবনযাপন
  8. তথ্যপ্রযুক্তি
  9. দেশজুড়ে
  10. নারী কন্ঠ
  11. প্রেস বিজ্ঞপ্তি
  12. ফার্মাসিস্ট কর্নার
  13. ফিচার
  14. ফ্যাশন
  15. বিনোদন

মিডিয়ার চাপে এই সিদ্ধান্ত কিনা, মুমিনুলের কাছে জানতে চেয়েছিলেন নাজমুল

ডেস্ক নিউজ
মে ৩১, ২০২২ ৯:০১ অপরাহ্ণ
Link Copied!

মুমিনুল হককে অধিনায়কত্ব থেকে এখনি সরিয়ে দেওয়ার ভাবনায় ছিলেন না বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। তবে মুমিনুল নিজে থেকে সরে যাওয়ার ঘোষণা দেওয়ায় নতুন একটি সিদ্ধান্তের সামনে তিনি। দ্য ডেইলি স্টারকে তিনি জানিয়েছেন মুমিনুলের সঙ্গে তার আলাপের বিস্তারিত।

শ্রীলঙ্কা সিরিজের পর পরই মুমিনুলের অধিনায়কত্ব চলে আসে আলোচনায়। ব্যাটে টানা রান খরায় থাকা এই বাঁহাতির সঙ্গে খোলামেলা আলোচনার কথা জানিয়েছিলেন বোর্ড প্রধান। তিনি ভারত থেকে ফেরার পর সেই আলোচনা হলো বুধবার বিকেলে। সেই আলোচনাতেই নিজের অধিনায়কত্ব ছাড়ার কথা বোর্ড প্রধানকে জানিয়ে দেন মুমিনুল।

mominul haque

বুধবার এই আলোচনায় বসার আগেও বিসিবি সভাপতি জানিয়েছিলেন, মুমিনুলের অধিনায়কত্ব নিয়ে তারা উদ্বিগ্ন নন। কোন রকম বদলের চিন্তাও তাদের নেই। কিন্তু মুমিনুল নিজে থেকে ছেড়ে দিলে তো আর করার কিছু থাকে না।

মুমিনুল নিজের ইচ্ছার কথা জানানোর পর, বোর্ড প্রধান কারণ জানতে চেয়েছিলেন, ‘জিজ্ঞেস করলাম এটা আবেগ থেকে কিনা, মিডিয়ার জোরাজুরিতে কিনা?’ বলল,  “না আমি ব্যাটিংয়ে মনোযোগ দিতে চাচ্ছি। কারণ আমি রান করছি না দলের জন্যই খারাপ লাগছে। টেস্টে তো আমাদের আরও উন্নতি করতে হবে। সেখানে আমিই যেখানে পারছি না, কারে কি বলব।” ওই কথাগুলাই বলছে আমি যা ভাবছিলাম।’

‘আমি বলেছি, “ঠিকাছে তুমি জানিয়েছ, আমি বোর্ডে কথা বলে দেখি। কাকে করব না করব এসব ব্যাপার আছে।” ও বলল যত তাড়াতাড়ি হয় তত  ওর জন্য ভাল।’

শ্রীলঙ্কা সিরিজ চলাকালীনই মুমিনুলকে অধিনায়ক করে জানিয়ে দেওয়া হয় ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজের দল। এই সিরিজের আগে তাই কোন পরিবর্তনের পক্ষে ছিল না বোর্ড। কিন্তু মুমিনুল চান দ্রুতই সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন হতে, ‘আমি চাচ্ছিলাম সিরিজটার পরে। কিন্তু ওর কথাবার্তা শুনে মনে হলো ইমিডিয়েট চাচ্ছে। এটাও আমরা বলেছি যে তুমি বললে তো হবে না, আমাদেরও দেখতে হবে। দেখে আমরা যত দ্রুত পারি করব।”

‘পরশু আমরা আলাপ করতে পারব। এখনি করব কিনা কখন করব। যাকে করব তার সঙ্গেও তো আলাপের বিষয় আছে।’

আগামী ২ জুন (বৃহস্পতিবার) বিসিবির কার্যকরি পরিষদের সাধারণ সভা। সেখানেই অধিনায়কত্ব নিয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়ার কথা জানান তিনি,  ‘এখন উনারা কি কি বিকল্প নিয়ে আসে দেখি। জালাল (ইউনুস) ভাইর ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ, ক্রিকেট অপারেশসন্সের চেয়ারম্যান তিনি,  (খালেদ মাহমুদ) সুজন আছে। তারা মিলে বিকল্প আসলে পরশু দিন সিদ্ধান্ত নিয়ে নেব, দেরি করব না। যাই করি না কেন। যদি বলি ও থাকলে কতদিন থাকছে। আর না থাকলে কে হচ্ছে সেটাও বলে দিতে পারব। ‘

মুমিনুলের বিকল্প হিসেবে সাকিবের নাম আছে আলোচনায়। কিন্তু সাকিবকে এই দায়িত্ব দেওয়ার ক্ষেত্রে মূল বাধা তাকে পাওয়া-না পাওয়ার ইস্যু। বুধবার চিকিৎসা শেষে সিঙ্গাপুর থেকে দেশে ফিরেছেন সাকিব। তার সঙ্গে আলাপ করবেন নাজমুল, জানতে চাইবেন তার পরিকল্পনা,  ‘ওর পরিকল্পনাটা তো জানতে হবে। প্রায়ই ওর সমস্যা থাকে। ক্যাপ্টেন হলে তো ওকে খেলতেই হবে।’

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।