রক্ত লাগলে রক্ত নে, বৈধ একটা ভিসি দে’

Print

 

বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) থেকে বৈধ উপাচার্যের নিয়োগের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলন চলছে সাভারের গণবিশ্ববিদ্যালয়ে (গণবি)।

পূর্বনির্ধারিত সময় অনুযায়ী শনিবার (৬ এপ্রিল) সকাল ৮টা থেকেই বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে অবস্থান নেন আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। সকাল ১০টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সামনে অবস্থান নেয় তারা। সকাল ১০টা ৪০ মিনিটে তারা প্রশাসনিক ভবনে তালা ঝুলিয়ে দেয়।

এরপর দুপুর ১২টার দিকে ইউজিসি কর্তৃক উপাচার্যের নিয়োগের দাবিতে সম্পূর্ণ ক্যাম্পাস প্রদক্ষিণ করে বিক্ষোভ মিছিল শেষ করে পুনরায় প্রশাসনিক ভবনের সামনে অবস্থান নেয়। এ সময় ‘রক্ত লাগলে রক্ত নে, বৈধ একটা ভিসি দে’ স্লোগানের আওয়াজ তুলে মিছিল করতে দেখা যায় তাদের।

এরপর আন্দোলনকারীদের পক্ষ থেকে সাধারণ ছাত্র পরিষদের আহ্বায়ক, যুগ্ম আহ্বায়ক সহ আন্দোলনকারীদের চারজন শিক্ষার্থীদের সাথে আলোচনায় বসে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। উক্ত আলোচনায় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের পক্ষে যোগ দেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন পূর্ণাঙ্গ মেয়াদের উপাচার্য ড. মেসবাহ উদ্দিন আহম্মেদ, দুই অনুষদের ডীন অধ্যাপক মনসুর মুসা ও ড. হাসিন অনুপমা আজহারী, রেজিস্ট্রার মো. দেলোয়ার হোসেন, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মীর মূর্ত্তজা আলী প্রমুখ।

আলোচনায় আন্দোলনকারীদের পক্ষে সকল দাবি তুলে ধরেন সাধারণ ছাত্র পরিষদের নেতৃত্ববৃন্দ। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ছাত্রদের সকল দাবি মেনে নিয়ে তদসংশ্লিষ্ট পদক্ষেপ নেওয়ার আশ্বাস দেন।

রেজিস্ট্রার দেলোয়ার হোসেন বলেন, ছাত্রদের সকল যৌক্তিক আন্দোলনের পক্ষে আছেন তিনিও। তিনি বলেন, ট্রাস্টি বোর্ডের কাছে সকল দাবি তুলে ধরবেন তিনি।

গত ২০১৮ সালের ১২ ডিসেম্বর উপাচার্য পদে লায়লা পারভিন বানুর বৈধতা সংক্রান্ত রিট মামলার রায় ঘোষণা করেছিলেন আদালত। রিট পিটিশন নম্বর: ১৬৪৪৮/২০১৭। রায় হাতে পাওয়ার ৬০ দিনের মধ্যে ২০১০ সালের বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় আইনের ৩১ ধারা অনুযায়ী নিয়োগ প্রক্রিয়ায় সহায়তাদানের নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। বাদী পক্ষ রায় হাতে পান ৩ এপ্রিল,২০১৯ তারিখে।

তবে এ রায়ের পরিপ্রেক্ষিতে ইউজিসি যদি আবার আপিল করে তাহলে উপাচার্য নিয়োগ প্রক্রিয়া আরও দীর্ঘায়ত হয়ে যাবে। ডাঃ লায়লা পারভিন বানু যেহেতু ইউজিসি’র নিকট বিতর্কিত। সেহেতু ট্রাস্টি বোর্ডের কাছে প্রয়োজনে তাকে বাদ দিয়েই উপাচার্য নিয়োগ প্রক্রিয়া সম্পন্ন করার দাবি জানিয়েছে শিক্ষার্থীরা।

আলোচনা শেষে শিক্ষার্থীরা দশ দফা দাবি লিখিত ভাবে পৌঁছে দেয় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে। দাবি গুলো হল:

১. বৈধ ভিসি নিয়োগের কমপক্ষে ২১ কার্যদিবস পর সেমিস্টার ফাইনাল পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। ২.ভিসি নিয়োগের আগে সমস্ত প্রকার ক্লাস-পরীক্ষা বন্ধ ঘোষণা করতে হবে।

৩. শুধু মাত্র ভিসি নিয়োগের জন্য প্রয়োজনীয় কার্যক্রম করার সুবিধার্থে সংশ্লিষ্ট অফিসিয়াল কার্যক্রমগুলো ছাড়া এবং প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের সার্টিফিকেট উত্তোলন সহ প্রয়োজনীয় কার্যক্রম ব্যতীত অন্যান্য একাডেমিক কার্যক্রমগুলো বন্ধ থাকবে।

৪. আলোচনা এবং আন্দোলন একই সাথে চলমান থাকবে।

৫. বিশ্ববিদ্যালয় মাঠ-প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত খেলায় ব্যাঘাত ঘটে এমন কোনো কার্যক্রমে আমাদের ‘সাধারণ ছাত্র পরিষদের’ এমন কোন প্রকার সমর্থন থাকবে না। আমরা এই টুর্নামেন্টের ব্যাপারে সর্বোচ্চ সহযোগিতা করব।

৬. ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যানের সাথে আমাদের দ্রুত আলোচনার জন্য বৈঠকে বসার ব্যবস্থা করতে হবে।

৭. বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল পদে নিযুক্ত শিক্ষক ও কর্মচারীদের বেতন আমাদের আন্দোলনকে ইস্যু করে আটকে রাখা যাবে না।

৮. আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ব্যাংক সংশ্লিষ্ট সকল কার্যক্রম বন্ধ থাকবে এর জন্য পরবর্তীতে কোন জরিমানা আদায় করা যাবে না।

৯. আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের কোন প্রকার হয়রানিমূলক মামলা-মোকদ্দমা, বহিষ্কারাদেশ সহ শাস্তিমুলক কোন পদক্ষেপ বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন গ্রহণ করতে পারবে না।

১০. যেহেতু ডাঃ লায়লা পারভিন বানু ম্যাম কে নিয়ে বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি) দ্বিমত পোষণ করেছেন এবং একটি বিতর্ক সৃষ্টি হয়েছে সেহেতু দ্রুত নতুন করে যোগ্য তিনজন ব্যক্তিকে প্যানেল করে ভিসি পদে নিয়োগের জন্য প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হোক।

সূত্র : গন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী গন

[ প্রিয় পাঠক, আপনিও বিডিসারাদিন24 ডট কম অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইল, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, রান্নার রেসিপি, ফ্যাশন-রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন- bdsaradin24@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে। নারীকন্ঠ এবং মত-দ্বিমত বিভাগে প্রকাশিত লেখার বিষয়, মতামত, মন্তব্য লেখকের একান্ত নিজস্ব। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে  bdsaradin24.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরণের দায় গ্রহণ করে না। ]

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 85 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ
bdsaradin24.com