ঢাকাবুধবার , ১ জুন ২০২২
  1. আন্তর্জাতিক
  2. ইতিহাস ঐতিয্য
  3. ইসলাম
  4. কর্পোরেট
  5. খেলার মাঠে
  6. জাতীয়
  7. জীবনযাপন
  8. তথ্যপ্রযুক্তি
  9. দেশজুড়ে
  10. নারী কন্ঠ
  11. প্রেস বিজ্ঞপ্তি
  12. ফার্মাসিস্ট কর্নার
  13. ফিচার
  14. ফ্যাশন
  15. বিনোদন

সম্মান ও ভালোবাসা নিয়ে বিদায় সংবর্ধনায় উপজেলা নির্বাহী অফিসার এইচ‌এম সালাউদ্দীন মনজু

Link Copied!

 

উপজেলা প্রশাসনের সর্বোচ্চ সম্মান ও ভালোবাসা নিয়ে বিদায় সংবর্ধনায় উপজেলা নির্বাহী অফিসার এইচ‌এম সালাউদ্দীন মনজু।

মন চায় না দিতে বিদায়,কিন্তু আমরা সত্যিই বড় নিরুপায়” উপজেলা অফিসার্স ক্লাব আয়োজিত নবাবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ইউএনও এইচ‌এম সালাউদ্দীন মনজুর
বিদায় সংবর্ধনা

অফিসারদের আবেগঘন ও নিরব কান্নায় সম্মানিত হলেন ইউএনও এইচ‌এম সালাউদ্দীন। কর্মজীবনের দীর্ঘ ৩ বছর ১ মাস ৯ দিন নবাবগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসারের পদ থেকে নারায়ণগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শিক্ষা (ADC) পদে পদোন্নতি পেয়ে বিদায় নিলেন এইচ‌এম সালাউদ্দীন মনজু।

আজ বিকেলে নবাবগঞ্জ উপজেলার অফিসার্স ক্লাব ও সকল ডিপার্টমেন্টের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সর্বোচ্চ সম্মান ও ভালোবাসায় সিক্ত হয়ে বিদায় সংবর্ধনা নিয়েছেন নবাবগঞ্জ উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা ও

এক্সিকিউটিভ ম্যাজিষ্ট্রেট নবাবগঞ্জ অফিসার্স ক্লাবের সভাপতি এইচ‌এম সালাউদ্দীন মনজু।

নবাবগঞ্জ অফিসার্স ক্লাব আয়োজিত বিদায় অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন করেন নবাবগঞ্জ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) অরুণ কৃষ্ণ পাল

বিদায় সংবর্ধনায় উপস্থিত ছিলেন নবাবগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা অফিসার ইনচার্জ ওসি মো.সিরাজুল ইসলাম শেখ পিপিএম।

অফিসারগণদের মধ্যে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তাগণ,স্থানীয় সরকার নবাবগঞ্জ উপজেলা প্রকৌশলী মোঃ জুলফিকার হক চৌধুরী,

নবাবগঞ্জ উপজেলার (ইউজিডিপি) অফিসার শাহিনা বেগম, নবাবগঞ্জ উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোঃ সাইদুর রহমান, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ হাসান‌ আহমেদ,মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার সিদ্দিক নূর আলম, প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার জেসমিন আহমেদ।

সহকারী শিক্ষা অফিসার শামীমা ইসলাম, জনস্বাস্থ্য কর্মকর্তাগণ,কলকাতা টিভি বাংলাদেশ ব্যুরোর ঢাকা ডিস্ট্রিক সাউথ প্রতিনিধি শাহীনুজ্জামান শাহীন প্রমুখ বিদায় সংবর্ধনায় অংশ নেন।

বিদায়ী নির্বাহী কর্মকর্তা এইচ এম সালাউদ্দীন মনজু নবাবগঞ্জ উপজেলা বাসীর কাছে তার কর্মের মাধ্যমে তার নিজের গ্রহণ যোগ্যতা শতভাগ নিশ্চিত করতে সব সময় কাজ করেছেন। করোনা কালীন সময়ে মানুষের বাসায় বাসায় গিয়ে উপজেলা হেল্প ডেস্কের মাধ্যমে সরকার ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধি মাননীয়

প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি খাতের শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা ঢাকা-১ এর সাংসদ সালমান ফজলুর রহমান (সালমান এফ রহমান) এমপির দেওয়া খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দিয়েছেন।

তার গুণের শেষ নেই। নবাবগঞ্জ উপজেলায় যতদিন ছিলেন ততদিন সাধারণ মানুষ ও জনগণের জন্য কাজ করেছেন তিনি। সাধারণ মানুষগুলো সরাসরি তার সাথে কথা বলতে পেরেছেন। সরকারের সেবা জনগণের দোরগোড়ায় পৌঁছে দিতে বদ্ধপরিকর ছিলেন।

এবিষয়ে কয়েকজনের সাথে কথা হলে তারা জানান অনেক ভালো একজন কর্মঠ ইউএনও ছিলেন তিনি। তাকে দেখে মনে হতো সত্যিই তিনি একজন ডায়নামিক উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা।

এছাড়া সাধারণ মানুষ যারা জানতে পেরেছেন তিনি বিদায় নিতে যাচ্ছেন উনারা তার বিদায়ে দুঃখ প্রকাশ করে বলেন আমরা একজন ভালো মানুষ কে বিদায় দিলাম। এবিদায় আমরা মেনে নিতে পারছি না। তার মহত্বের কথা আমরা শেষ করতে পারবো না।

তিনি ছিলেন সাধারণ মানুষের। সাধারণ মানুষ তার কাছে অনেক সেবা পেয়েছেন। যেটা আজীবন মানুষ স্বরন করবে। তিনি একজন জনবান্ধব ইউএনও ছিলেন। তার আমলে নবাবগঞ্জ উপজেলার অনেক পরিবর্তন হয়েছে। বিশেষ করে উপজেলা প্রশাসনের আমূল পরিবর্তন ঘটেছে যার সুফল মানুষ পেতে শুরু করেছেন।

উপজেলা প্রশাসনিক কোন বিষয়ে উনাকে অবহিতকরণ করা হলে তিনি তাৎক্ষণিকভাবে দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণ করে চেষ্টা করেছেন সমাধান করতে। তার প্রশাসনিক কর্মদক্ষতা আমরা মনে রাখবো।

এইচ এম সালাউদ্দীন মনজুর পরবর্তী যিনি দায়িত্ব ভার বহন করবেন আশা করি উনার দেখানো কর্মকান্ড গুলো অব্যাহত রাখতে সক্ষম হবেন। তিনি যেসব প্রশাসনিক কর্মকাণ্ড নিয়ে কাজ করেছেন সেগুলো বাস্তবায়নে নতুন যিনি আসবেন তিনিও হয়ত করবেন এই প্রত্যাশা সকলের।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।