হঠাৎ রাষ্ট্রহীন ১৯ লাখ মানুষ কোথায় যাবে

Print

ভারতের সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ মেনে আসামে ন্যাশনাল রেজিস্টার অব সিটিজেন্স (এনআরসি) বা জাতীয় নাগরিকপঞ্জির চূড়ান্ত তালিকায় ঠাঁই মিলেছে তিন কোটি ১১ লাখ ২১ হাজার ৪ জনের। আবেদনকারীর মোট সংখ্যা ছিল তিন কোটি ৩০ লাখ ২৭ হাজার ৬৬১ জন। অর্থাৎ বাদ পড়েছে ১৯ লাখ ছয় হাজার ৬৫৭ জনের নাম।

কার্ত রাষ্ট্রহীন হয়ে যাওয়া এই বাংলাভাষীদের ভবিষ্যত কী হবে, তাদের দায়িত্ব কে নেবে, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, চিকিৎসা, বাসস্থান, জীবিকার নিশ্চয়তা কীভাবে হবে, এসব প্রশ্নের কোনো জবাব নেই।

বাদ পড়াদের মধ্যে ১৭ লাখই বাংলাভাষী। এর মধ্যে আবার হিন্দু ১২ আর মুসলিম ৫ লাখ। এনআরসি প্রকাশের পর বাদ পড়াদের মধ্যে হিন্দু বেশি হওয়ায় অস্বস্থিতে পড়েছে দেশটির ক্ষমতাসীর দল বিজেপি। এরইমধ্যে এনআরসিতে সমাধান আসবে জানিয়ে অন্য বিকল্পের ইঙ্গিত দিয়েছে আসাম রাজ্যের অর্থমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্বশর্মা।

শনিবার এই তালিকা প্রকাশ ঘিরে আসামে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। সকাল থেকে জারি করা ১৪৪ ধারা। মোতায়েন করা হয় ৬০ হাজার পুলিশ সদস্য। তাদের সঙ্গে রাখা হয় ২০ হাজার আধাসামরিক বাহিনী (সিআরপিএফ) সদস্য।

তালিকায় নাম না থাকলেই বিদেশি বলে চিহ্নিত কিংবা বন্দিশিবিরে নেওয়া হবে না বলে ইতোমধ্যে আশ্বস্ত করেছে আসাম রাজ্য সরকার। আসামের মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সনোয়াল জানিয়েছেন, যাদের নাম বাদ পড়েছে তাদের উদ্বিগ্ন হওয়ার কোনও কারণ নেই। আগামী ১২০ দিনের মধ্যে ট্রাইব্যুনালে আবেদন জানাতে পারবেন তারা।

[ প্রিয় পাঠক, আপনিও বিডিসারাদিন24 ডট কম অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইল, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, রান্নার রেসিপি, ফ্যাশন-রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন- bdsaradin24@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে। নারীকন্ঠ এবং মত-দ্বিমত বিভাগে প্রকাশিত লেখার বিষয়, মতামত, মন্তব্য লেখকের একান্ত নিজস্ব। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে  bdsaradin24.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরণের দায় গ্রহণ করে না। ]

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 42 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ
bdsaradin24.com