৫ টাকায় এক বেলা খাবার

Print

দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতির মধ্যেই পাঁচ টাকায় দুপুর বা রাতের খাবার মিলছে নাটোরের প্রাণ এ্যাগ্রো লিমিটেডের ফ্যাক্টরিতে। শ্রমিক-কর্মচারী-কর্মকর্তা সবাই পাঁচ টাকায় খাবার খেতে পারেন ফ্যাক্টরির ক্যাফেটেরিয়ায়। একদিন মাছ তো অন্যদিন মাংস। ডাল থাকছে প্রতিদিন। আর ভাজি বা ভর্তার কোনো একটি পছন্দ মতো।

মূলত, শ্রমিকদের কল্যাণেই স্বল্পমূল্যে এই খাবারের ব্যবস্থা। পাঁচ টাকার পরিবর্তে বিনামূল্যেও খাবারের ব্যবস্থা করতে পারতেন প্রাণ কর্তৃপক্ষ- এমন প্রশ্নও জাগতে পারে যে কারো মনে। কিন্তু খাবারে শ্রমিকদের অংশগ্রহণ নিশ্চিত করতেই পাঁচ টাকার এই ব্যবস্থা। বিনামূল্যে খাবার খেয়ে শ্রমিকরা যেন হীনমন্যতায় না ভোগেন, সে জন্যই সামান্য অর্থ নেয়া।

কোম্পানির এক শ্রমিক আবু বকর বলেন, ‘আমরা ভালো থাকলে কারখানাও ভালো থাকবে। এ কারণে কর্তৃপক্ষ দুপুর বা রাতে মাত্র পাঁচ টাকার বিনিময়ে খাবারের ব্যবস্থা করেছে। খাবার নিয়ে কারো কোনো আপত্তি নেই। প্রতিদিন মাছ অথবা মাংস থাকবেই। যার যেটা ইচ্ছা, সেটাই খেতে পারেন।’

ফ্যাক্টরির প্রাণ মসলা বিভাগে শিফট ইনচার্জ মোছাম্মত শিউলি বলেন, ‘কেন্দ্রীয় ক্যাফেটেরিয়ার বাইরেও প্রতিটি ফ্লোর বা বিভাগে খাবার পরিবেশন হয়। দর একই। পাঁচ টাকায় খাবার! শুনলে অনেকেই অবাক হন। কিন্তু এটিই সত্য। আমরা পাঁচ টাকা দিয়েই খাবার কিনে খাই। এতে খাবারে যেমন নিজের অংশগ্রহণ থাকছে, আবার সাশ্রয়ও মিলছে।’

প্রাণ কারখানার জ্যেষ্ঠ ব্যবস্থাপক (প্রশাসন) কাদের সরকার বলেন, ‘এখানে শ্রমিকের স্বার্থই আগে। শ্রমিক ভালো থাকলে কারখানা ভালো থাকবে- এটিই প্রাণ কোম্পানির নীতি। পাঁচ টাকায় দুপুর বা রাতের খাবার পরিবেশন হয় সবার জন্য। খাবারে সবার অংশগ্রহণ রাখতে সামান্য এই টাকা নেয়া।’

[ প্রিয় পাঠক, আপনিও বিডিসারাদিন24 ডট কম অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইল, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, রান্নার রেসিপি, ফ্যাশন-রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন- bdsaradin24@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে। নারীকন্ঠ এবং মত-দ্বিমত বিভাগে প্রকাশিত লেখার বিষয়, মতামত, মন্তব্য লেখকের একান্ত নিজস্ব। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে  bdsaradin24.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরণের দায় গ্রহণ করে না। ]

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 126 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ
bdsaradin24.com