সৌদি নারীদের জনপ্রিয় পোশাক ‘স্পোর্টস আবায়া’

Print

সৌদি আরবে জনপ্রিয় হয়ে উঠছে ‘স্পোর্টস আবায়া’ নামে নারীদের বিশেষ পোশাক। একসময় নারীদের পর্দার ব্যাপারে দেশটিতে অনেক কঠোর থাকলেও, সমাজে নারীদের অবস্থানে পরিবর্তন আনতে চাচ্ছেন সৌদি যুবরাজ। আরবে নারীর অধিকার ও ক্ষমতায়ন নিশ্চিতে এ ধরণের পরিবর্তনকে সাধুবাদ জানিয়েছেন নারীরা।

রক্ষণশীল আরব সমাজে আবায়ার এই বিশেষ সংস্করণকে একসময় অবাধ্য নারীদের পোশাক হিসেবে ধরা হতো। তবে সময়ের পরিবর্তনের সাথে সাথে বাড়ছে স্পোর্টস আবায়ার জনপ্রিয়তা।
বর্ণিল, আরামদায়ক ও ক্রীড়া বান্ধব এই পোশাকে নারী খেলোয়াড়দের কিছু ছবি গত মাসে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। এরপরই সৌদীআরব জুড়ে শুরু হয় নানা বিতর্ক।

একে ঐতিহ্যবিরোধী বলেও ফতোয়া দেন কট্টোরপন্থী মুসলিমরা। তবে ইসলামে আবায়া পরিধান বাধ্যতামূলক নয় – সৌদি যুবরাজের এমন ঘোষণায় সেসব বিতর্ক অনেকটাই থেমে যায়। এছাড়াও নারীদের শুধুমাত্র কালো পোশাক পরিধানের কোন ধর্মীয় বিধান নেই, এমন মত দেন সৌদি আলেম শেখ আহমেদ বিন কাশিম আল ঘামদি।

এসব পদক্ষেপ সত্যি প্রশংসনীয়। এর মাধ্যমে নারীরা খেলাধুলায় অংশগ্রহণে আগ্রহ পাবে। আর খেলাধুলা নারীদের দৈহিক ও মানসিক উন্নয়নের পাশাপাশি সামাজিক উন্নয়নেও ইতিবাচক ভূমিকা রাখে।

সাধারণ আলখেল্লার চাইতে আধুনিক আবায়ায় পর্দা রক্ষার পাশাপাশি খেলাধুলা ও হাঁটাচলায় বেশ সুবিধাজনক। হিজাব আর বেইসবল ক্যাপের সাথেও আবায়া পড়ছেন অনেকে। এর বাহারি রঙকে নারীদের স্বাধীনতার প্রতীক হিসেবে দেখছেন ফ্যাশন ডিজাইনাররা।

গাড়ি চালানো ও খেলাধুলায় অংশগ্রহণের অনুমতির পর এবার রাজধানী রিয়াদে ম্যারাথন দৌড়েও নারী দৌড়বিদরা অংশ নিতে পারবেন বলে ঘোষণা দিয়েছে কর্তৃপক্ষ। ধর্মীয় গোঁড়ামি থেকে বেরিয়ে আসতে এমন সব পদক্ষেপে দিন বদলের স্বপ্ন দেখছেন সৌদির নারীরা।

[ প্রিয় পাঠক, আপনিও বিডিসারাদিন24 ডট কম অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইল, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, রান্নার রেসিপি, ফ্যাশন-রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন- bdsaradin@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে। নারীকন্ঠ এবং মত-দ্বিমত বিভাগে প্রকাশিত লেখার বিষয়, মতামত, মন্তব্য লেখকের একান্ত নিজস্ব। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে  bdsaradin24.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরণের দায় গ্রহণ করে না। ]

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 277 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ