সিলেটে ঈদগাহে শুটিং করায় ক্ষমা চেয়েছে কানন ফিল্মস

Print

সিলেটের ঐতিহাসিক শাহী ঈদগাহে ফিল্ম শুটিং করতে গিয়ে ক্ষমা চাইতে হল ‘কানন ফিল্মস’ কর্তৃপক্ষকে। শাহী ঈদগাহে ‘ইত্তেফাক’ নামক সিনেমার একটি দৃশ্যের শুটিং হওয়া নিয়ে বিরূপ প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হওয়ার প্রেক্ষিতে ফিল্ম কর্তৃপক্ষ ক্ষমা চাইতে বাধ্য হয় ধর্মপ্রাণ সিলেটবাসীর কাছে।

মঙ্গলবার গণমাধ্যমে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে শুটিংয়ের বিষয় নিয়ে তাদের বক্তব্য উপস্থাপন করে কানন ফিল্মস।

‘ইত্তেফাক’ সিনেমার পরিচালক ও প্রযোজক রায়হান রাফি স্বাক্ষরিত ওই বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, শাহী ঈদগাহে যে দৃশ্য ধারণ করা হয়, সেটি ছিল নামাজের। ঈদগাহ ইসলাম ধর্মের একটি পূণ্যময় স্থান। একজন তরুণ অন্ধকার থেকে আলোর পথে, ইসলাম ধর্মের পথে ফিরে আসাকে তুলে ধরতেই মূলত পূণ্যময় এই স্থানকে বেছে নেয়া হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সিনেমার ওই শুটিংয়ে দুই রাকাত নামাজের একটি দৃশ্য ধারণ করা হয়। কোনোভাবেই সেখানে নাচ-গান বা সিনেমার অন্য কোনো দৃশ্য ধারণ করা হয়নি। আমরাও মুসলিম এবং ধর্মপ্রাণ মুসলমান। ঈদগাহের মতো একটি পূণ্যময় স্থানের মর্যাদা রক্ষায় আমরা আন্তরিক। সেখানে এমন কিছু হোক যাতে ঈদগাহের পবিত্রতা নষ্ট হয়, তা আমরা করার স্পর্ধা দেখাব না।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, এই ঘটনাকে প্রচার করা হয়েছে অন্যভাবে। তারপরও শাহজালাল-শাহপরান (রহ.)-এর স্মৃতিবিজড়িত সিলেটের ধর্মপ্রাণ মুসলিম সমাজ আমাদের ওপর ক্ষুব্ধ হলে বা ধর্মীয়ভাবে আঘাত পেলে আমরা আন্তরিকভাবে দুঃখিত, মর্মাহত এবং ক্ষমাপ্রার্থী।

প্রসঙ্গত, গত বৃহস্পতিবার সিলেটের শাহী ঈদগাহে শুটিংয়ে এসেছিল কানন ফিল্মস।

[ প্রিয় পাঠক, আপনিও বিডিসারাদিন24 ডট কম অনলাইনের অংশ হয়ে উঠুন। লাইফস্টাইল, স্বাস্থ্য, ভ্রমণ, ক্যারিয়ার, পরামর্শ, রান্নার রেসিপি, ফ্যাশন-রূপচর্চা ও ঘরোয়া টিপস নিয়ে লিখুন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে ছবিসহ মেইল করুন- bdsaradin@gmail.com-এ ঠিকানায়। লেখা আপনার নামে প্রকাশ করা হবে। নারীকন্ঠ এবং মত-দ্বিমত বিভাগে প্রকাশিত লেখার বিষয়, মতামত, মন্তব্য লেখকের একান্ত নিজস্ব। লেখকের মতামত, বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে  bdsaradin24.com আইনগত বা অন্য কোনো ধরণের দায় গ্রহণ করে না। ]

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 63 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ